ঢাকা,  বৃহস্পতিবার
১৩ জুন ২০২৪

Advertisement
Advertisement

কঠোর গোপনীয়তা দিতে হোয়াটসঅ্যাপ আনলো নতুন ফিচার

তথ্য প্রযুক্তি ডেস্ক

প্রকাশিত: ২৩:১২, ১৬ মে ২০২৩

আপডেট: ২৩:১৩, ১৬ মে ২০২৩

কঠোর গোপনীয়তা দিতে হোয়াটসঅ্যাপ আনলো নতুন ফিচার

ছবি : ইন্টারনেট

ব্যবহারকারীদের কঠোর গোপনীয়তা দিতে হোয়াটসঅ্যাপ নিয়ে এলো নতুন ফিচার। মেটার মালিকানাধীন ইনস্ট্যান্ট মেসেজিং প্রতিষ্ঠানটির নতুন এই উদ্যোগের ফলে আরও সুরক্ষিত থাকতে ব্যক্তিগত কথোপকথন।

হোয়াটসঅ্যাপে সুরক্ষিত প্রবেশের জন্য আগে থেকেই পাসওয়ার্ড লক ছিল। এরপরও ব্যবহারকারীরা পুরোপুরি সন্তুষ্ট ছিলেন না; তথ্য ফাঁসের একটা ভয় ছিলই। ঘোষিত নতুন লক চ্যাট ফিচারটি ব্যবহারকারীদের কাছে আরও বেশি জনপ্রিয় হবে বলে আশা করছে হোয়াটসঅ্যাপ।

আগে বিকল্প ছিল শুধু চ্যাটকে বিশেষ সংরক্ষণে (আর্কাইভ) নিয়ে যাওয়া। যা খুব নিরাপদ বা সন্তোষজনক ছিল না। কিন্তু নতুন ঘোষণায় অ্যাপ ভক্তরা আরও বেশি তথ্য সুরক্ষা পাবেন। নতুন বৈশিষ্ট্য ব্যক্তিগত চ্যাটগুলোকে স্বয়ংক্রিয়ভাবেই লক করতে দেয়। যা সবার অগোচরে নিয়ে চ্যাটের ব্যক্তিগত সুরক্ষা নিশ্চিত করে।

বর্তমানে হোয়াটসঅ্যাপে ‘চ্যাট লক’ সুবিধা দিয়ে থাকে। অ্যাপ ব্যবহারে পাসওয়ার্ড দিয়ে চ্যাট লক করা ও অন্যদের থেকে তা লুকিয়ে রাখার নিশ্চয়তা দিয়ে থাকে। নতুন ফিচার অ্যাপ ভক্তদের আরও গোপনীয়তা ও সুরক্ষার নিশ্চিতে তৈরি বলে হোয়াটসঅ্যাপ ডেভেলপার সূত্রে জানানো হয়।

নিরাপত্তা ফিচারে হোয়াটসঅ্যাপ ‘চ্যাট লক’ ব্যবহারকারীদের সবচেয়ে ঘনিষ্ঠ কথোপকথনকে আলাদা ফোল্ডারে স্থানান্তর করতে দেবে। শুধু ডিভাইসে পাসওয়ার্ড বা বায়োমেট্রিক অ্যাকসেস নিশ্চিতে ফিঙ্গারপ্রিন্ট কৌশল কাজে লাগানো যেতে পারে। অন্য কোনো স্মার্টফোনে হোয়াটসঅ্যাপ অ্যাকসেস থাকলেও, তারা লক করা চ্যাট দেখতে বা অ্যাকসেস করতে পারবে না। লক করা চ্যাটের বিষয়ে প্রেরকের নাম বা শেয়ার করা কোনো রকম তথ্য যেমন ছবি, অডিও বা ভিডিও ক্লিপ অন্য কেউ দেখতে পারবে না।

নতুন ‘লক চ্যাট’ ফিচারটি আইওএস আর অ্যানড্রইড দু ধরনের  অপারেটিং সিস্টেমের জন্যই প্রযোজ্য হবে। লক ফিচারের সুবিধা নিতে অ্যাপটিকে আপডেট করে নিতে হবে।

নতুন ফিচার পেতে সবশেষ সংস্করণ ডাউনলোড বা আপগ্রেড করে নিতে হবে। হোয়াটসঅ্যাপে ব্যক্তিগত বা গ্রুপ চ্যাট লক করতে প্রথমে অ্যাপের প্রোফাইল পিকচারে গিয়ে সিলেক্ট করলে ডান পাশের নিচে (Chat Lock) অপশন দৃশ্যমান হবে। ওখানে ডিসঅ্যাপিয়ারিং মেসেজ মেন্যুতে ট্যাপ করতে হবে। তখন হয় পাসওয়ার্ড বা বায়োমেট্রিক লক বেছে নিয়ে চ্যাটকে সুরক্ষিত করতে পারবেন।

প্রসঙ্গত, ‘হোয়াটসঅ্যাপকে বিশ্বাস করা কঠিন হয়ে যাচ্ছে! হোয়াটসঅ্যাপ আমার আপনার সবার সব কথাই শুনে নিচ্ছে। প্রেমিক-প্রেমিকা, বন্ধু-বান্ধব, মা-বাবা যার সঙ্গেই হোয়াটসঅ্যাপে কথোপকথন করা হচ্ছে, তার সবই শুনতে পাচ্ছে এই অ্যাপ।’ সম্প্রতি টুইটারের এক ইঞ্জিনিয়ার এই অভিযোগ তুলেছেন।

টুইটার প্রধান নির্বাহী ইলন মাস্ক ওই ইঞ্জিনিয়ারকে উদ্ধৃত করে বলেছেন, হোয়াটসঅ্যাপকে আর বিশ্বাস করা যায় না। হোয়াটসঅ্যাপের বিরুদ্ধে আড়ি পাতার অভিযোগ করার পর এই ইঞ্জিনিয়ারের টুইট ব্যাপকভাবে ভাইরাল। ওই টুইটে দাবি করা হয়, তিনি রাতে যখন ঘুমান তখন তার পিক্সেল ফোনের ব্যাকগ্রাউন্ডে মাইক্রোফোন ব্যবহার করে হোয়াটসঅ্যাপ।

তিনি বলেন, ‘আমি ঘুমাচ্ছিলাম, হোয়াটসঅ্যাপ তখন ব্যাকগ্রাউন্ডে মাইক্রোফোন ব্যবহার করছিল। আমি সকাল ছয়টায় ঘুম থেকে উঠলাম, তখনো এই কাজ চালাচ্ছিল হোয়াটসঅ্যাপ। এসব হচ্ছেটা কী?’

টুইটটি দ্রুতই ভাইরাল হয়ে যায়। বিষয়টিকে আনুষ্ঠানিকভাবে স্বীকার করেছে হোয়াটসঅ্যাপ। তবে এই ঘটনার জন্য অ্যান্ড্রয়েডকে পুরোপুরি দায়ী করেছে মেসেজিং প্ল্যাটফর্মটি। হোয়াটসঅ্যাপ বলছে, ‘এটি অ্যান্ড্রয়েডের সমস্যা। হোয়াটসঅ্যাপের সব মেসেজ এবং কল এন্ড-টু-এন্ড এনক্রিপশন দ্বারা সুরক্ষিত।’

Advertisement
Advertisement

Notice: Undefined variable: sAddThis in /mnt/volume_sgp1_05/p1kq0rsou/public_html/details.php on line 531